এ কেমন দরজা !! কাছে গেলে ১ মিনিটেই মৃত্যু অবধারিত !!

দুনিয়াতে অনেক রহস্যময় স্থান রয়েছে।

এমনই একটি জায়গা হলো- গ্রিসের এক প্রাচীন নিদর্শন। জায়গাটি দর্শনীয় তো বটেই। তবে তার বেশি কাছে গেলেই ভয়ানক বিপদ। কেননা, মৃত্যুর দুয়ারে টেনে নিয়ে যায় মানুষকে। বহু বছর ধরে তাই এই জায়গার ধারে-কাছেও যায় না কেউ। অবশেষে সেই রহস্য উদঘাটন করা সম্ভব হয়েছে।

এই জায়গাটি ‘Hades’ Gate’ নামে পরিচিত। বর্তমানে এটি তুরস্কের ওয়েস্টার্ন ডেনিজিল প্রদেশে অবস্থিত। জানা গেছে, এটির ধারে-কাছে যেকোনো মানুষ থেকে পশুপাখি যেই যাক তার মৃত্যু হয়। বিজ্ঞানীরা গবেষণা করে দেখেছেন, এটা শুধু গল্পকথা নয়। এটা আসলেই সত্যি।

সম্প্রতি বিজ্ঞানীরা প্রত্নতত্ত্বের উপর লেখা একটি জার্নালে জানিয়েছেন, ওই অঞ্চলে সমানে বিপুল পরিমাণ কার্বন-ডাই-অক্সাইড নির্গত হচ্ছে। আজও পর্যন্ত একইভাবেই বেরিয়ে আসছে বিষাক্ত গ্যাস। আর তাই সেখানে গেলেই মৃত্যু অবধারিত।

তবে কোনদিকে সূর্য উঠছে আর কোনদিকে হাওয়া বইছে, তার উপর নির্ভর করে কোনদিক থেকে কার্বন-ডাই-অক্সাইড বের হবে। এখানে রাতে এতো বেশি পরিমাণ গ্যাস বের হয় যে, এক মিনিটের মধ্যে মানুষের মৃত্যু হতে পারে।

প্রাচীন গল্পকথা শোনা যায়, এই জায়গায় বহু মানুষ, পশু, পাখির মৃত্যু হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *